অর্থপাচারের মামলায় সম্রাট-এনামুলকে রিমান্ডে চায় সিআইডি

বিদেশে ১৯৫ কোটি টাকা অর্থপাচারের মামলায় বহিষ্কৃত যুবলীগ নেতা ইসমাইল চৌধুরী সম্রাট ও তাঁর সহযোগী এনামুল হক আরমানকে তিন দিনের রিমান্ডে নিতে আবেদন করেছে সিআইডি। আগামী ৪ এপ্রিল এ রিমান্ড শুনানির দিন নির্ধারণ করা হয়েছে।

আজ বুধবার ঢাকার অতিরিক্ত চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আবুবকর ছিদ্দিক রিমান্ড শুনানির দিন নির্ধারণ করেন। আদালতে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা সিআইডির পরিদর্শক মেহেদী মাকসুদ এ আবেদন করেন। বিচারক আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে আগামী ৪ এপ্রিল রিমান্ড শুনানির জন্য নতুন দিন নির্ধারণ করেন।

নথি থেকে জানা গেছে, গত বছরের ১২ সেপ্টেম্বর রাজধানীর রমনা থানায় মালয়েশিয়া ও সিঙ্গাপুরে ১৯৫ কোটি টাকা পাচারের অভিযোগে মামলাটি দায়ের করেন সিআইডির অর্গানাইজড ক্রাইম বিভাগের উপপরিদর্শক (এসআই) রাশেদুর রহমান।

এজাহারে বলা হয়, আসামি ইসমাইল চৌধুরী সম্রাট রাজধানীর মতিঝিল, ফকিরাপুল, পল্টন, কাকরাইল এলাকায় অবৈধভাবে প্রভাব বিস্তার করে বিভিন্ন অবৈধ কর্মকাণ্ডের মাধ্যমে প্রায় ১৯৫ কোটি টাকা এনামুল হক আরমানের সহায়তায় সিঙ্গাপুর ও মালয়েশিয়ায় পাচার করেছেন।

এতে আরও বলা হয়, সম্রাট ২০১১ থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত সিঙ্গাপুরে ৩৫ বার, মালয়েশিয়ায় তিনবার, দুবাই দুবার ও হংকং একবার ভ্রমণ করেছেন। একই সময়ে আরমান ২৩ বার সিঙ্গাপুর ভ্রমণ করেন।