করোনায় মৃত্যু কমেছে খুলনার হাসপাতালগুলোতে

খুলনার চারটি হাসপাতালে করোনা আক্রান্ত হয়ে কারো মৃত্যু হয়নি। শুধুমাত্র খুলনা ডেডিকেটেড করোনা হাসপাতালের চারজনের মৃত্যু হয়েছে। গতকাল শুক্রবার সকাল ৮টা থেকে শনিবার (৩১) সকাল ৮টা পর্যন্ত গত ২৪ ঘণ্টায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাদের মৃত্যু হয়।

খুলনা জেনারেল হাসপাতালের করোনা ইউনিটে, শহীদ শেখ আবু নাসের বিশেষায়িত হাসপাতালের করোনা ইউনিটে, খুলনা সিটি মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের করোনা ইউনিটে এবং গাজী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের করোনা ইউনিটে গত ২৪ ঘণ্টায় কোনো করোনা রোগী মারা যায়নি।

খুলনা ডেডিকেটেড করোনা হাসপাতালের ফোকালপার্সন ডা. সুহাস রঞ্জন হালদার জানান, ডেডিকেটেড করোনা হাসপাতালে গত ২৪ ঘণ্টায় চারজনের মৃত্যু হয়েছে। বর্র্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ১৩৩ জন। এরমধ্যে রেড জোনে ৫০ জন, ইয়ালো জোনে ৪৯ জন ও আইসিইউতে ২০ জন।

শহীদ শেখ আবু নাসের বিশেষায়িত হাসপাতালের করোনা ইউনিটের মুখপাত্র ডা. প্রকাশ দেবনাথ জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালের করোনা ইউনিটের কোনো রোগীর মৃত্যু হয়নি। বর্তমানে হাসপাতালের করোনা ইউনিটে ভর্তি রয়েছেন ৪২ জন। এরমধ্যে আইসিইউতে রয়েছে ১০ জন। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় ভর্তি হয়েছেন দুজন ও সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন একজন।

খুলনা জেনারেল হাসপাতালের ৮০ শয্যার করোনা ইউনিটের মুখপাত্র ডা. কাজী আবু রাশেদ জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালের করোনা ইউনিটে কেউ মারা যায়নি। বর্তমানে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ৪০জন রোগী। এরমধ্যে ১৬জন পুরুষ, ও ২৪ জন নারী। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় ভর্তি হয়েছেন চারজন।

সিটি মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের করোনা ইউনিটে টানা চারদিন কোন রোগীর মৃত্যু হয়নি। বেসরকারি এ হাসপাতালটির ৯০ শয্যার করোনা ইউনিটে বর্তমানে ৬১ জন ভর্তি রয়েছেন। এর মধ্যে আইসিইউতে ভর্তি রয়েছেন নয়জন। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় ভর্তি হয়েছেন নয়জন ও সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন দুজন। গতকাল শুক্রবার এই হাসপাতালে ২১ জনের নমুনা পরীক্ষায় আটজনের করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়েছে।

বেসরকারি গাজী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) ডা. গাজী মিজানুর রহমান জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালের করোনা ইউনিটে কোন রোগী মারা যায়নি। বর্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ৭০জন। এর মধ্যে আইসিইউতে রয়েছেন তিনজন। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ভর্তি হয়েছেন ১১ জন ও সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন নয়জন।