দাবি আদায়ে শিক্ষার্থীদের তিন দিনের আলটিমেটাম

স্থগিতাদেশ প্রত্যাহার করে পরীক্ষা নেয়া এবং আটক শিক্ষার্থীদের মুক্তি দিতে তিন দিনের আলটিমেটাম দিয়েছেন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা। আন্দোলন স্থগিত করে তারা জানিয়েছেন, আগামী রবিবারের মধ্যে দাবি আদায় না হলে তারা আবার আন্দোলনে নামবেন।

বৃহস্পতিবার সকালে রাজধানীর শাহবাগে বিক্ষোভে নামেন জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্তর্ভুক্ত বিভিন্ন সরকারি কলেজের স্নাতক ও স্নাতকোত্তরের শিক্ষার্থীরা। এ সময় ১০ শিক্ষার্থীকে আটক করে পুলিশ। বেলা ২টার দিকে শিক্ষার্থীরা আন্দোলন স্থগিত করেন।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী হাসান আবিদ জানান, স্থগিত পরীক্ষা দ্রুত সময়ের মধ্যে নেয়া এবং আটক শিক্ষার্থীদের মুক্তির দাবিতে তারা আন্দোলন করছেন। আপাতত আন্দোলন স্থগিত করা হয়েছে। তবে রবিবারের মধ্যে দাবি না মানলে আবার তারা দেশব্যাপী আন্দোলনে নামবেন।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা স্থগিতের প্রতিবাদে বৃহস্পতিবার সকাল ১০টার পর বেশ কিছু শিক্ষার্থী শাহবাগ মোড়ে এসে অবস্থান নেন। এ সময় তারা বিভিন্ন স্লোগান দেন। এতে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। সৃষ্টি হয় তীব্র যানজট।

শাহবাগ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মামুনুর রশিদ বলেন, সড়ক ছেড়ে দিতে বলা হলেও শিক্ষার্থীরা সড়ক না ছেড়ে পুলিশের সঙ্গে তর্কাতর্কি করেন। ছত্রভঙ্গ করতে গেলে পুলিশের ওপর তারা হামলা করেন। এ কারণে ১০ শিক্ষার্থীকে হেফাজতে নেয়া হয়েছে।

এর আগে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত শিক্ষার্থীরা তাদের পরীক্ষা নেয়ার দাবিতে গত বুধবার শাহবাগ, নীলক্ষেত মোড়ে অবস্থান নেন। একপর্যায়ে স্থগিত পরীক্ষা নেয়ার কথা বলা হলে সড়ক ছেড়ে চলে যান তারা। পরে রাতেই সাত কলেজের তৃতীয় ও চতুর্থ বর্ষের স্থগিত পরীক্ষার রুটিন প্রকাশ করেছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।