ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবসহ ক্ষতিগ্রস্ত প্রতিষ্ঠান পরিদর্শনে ডা. জাফরুল্লাহ

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবসহ ক্ষতিগ্রস্ত প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন করেছেন গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ও ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধি দল। আজ শনিবার দুপুরে ১৪ সদস্যের প্রতিনিধি দল হামলায় ক্ষতিগ্রস্ত  ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাব ও আহত সভাপতি রিয়াজউদ্দিন জামিসহ আহত সাংবাদিকদের সমবেদনা জানাতে ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবে আসেন।

ডা. জাফরুল্লাহ সাংবাদিকদের কাছ থেকে সেদিনের ঘটনার বিবরণ শুনে বলেন, ‘সাংবাদিকদের ওপর যে হামলা হয়েছে তা ঘৃণ্য কাজ। আমরা এ ঘটনায় মর্মাহত হয়েছি। এতটা সচেতন পুলিশ কিন্তু সেই পুলিশ এত বড় একটা ঘটনায় কেন কোনো খবর পেল না? সেটা জানিনা। অনেকে পুলিশকেই দোষ দিচ্ছেন বা আওয়ামী লীগের কারো কারো। আসলে আমরা এখন এ সম্পর্কে কিছু বলতে পারছি না। আমরা শুধু দুঃখই প্রকাশ করতে পারি। সাংবাদিককে ও প্রেসক্লাবে আক্রমণ করা হয়েছে। আমার হিসাবে প্রেসক্লাব আক্রমণ আর মসজিদে আক্রমণ একই কথা। প্রেসক্লাব একটি পবিত্র জায়গা। আপনাদের কাজ হলো সত্যকে তুলে ধরা। আপনারা অনেক জায়গায় সেটাই করে থাকেন। একই ভাবে আমি নিন্দনীয় মনে করি উনারা মসজিদের মাইক ব্যবহার করেছেন।

ডা. জাফরুল্লাহসহ প্রতিনিধি দল বিভিন্ন ক্ষতিগ্রস্ত প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন করেন এবং আহত ব্যক্তিদের সঙ্গে কথা বলেন।

এছাড়া নিহতদের পরিবারের সঙ্গে সাক্ষাৎ করারও কথা রয়েছে তার। এ সময় গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জোনায়েদ সাকীসহ কেন্দ্রীয় নেতারা উপস্থিত ছিলেন।