ভারতের পররাষ্ট্রনীতিতে ‘বিশেষ স্থানে’ বাংলাদেশ: রামনাথ কোবিন্দ

ঢাকা: বাংলাদেশ সফরে এসে ভারতের রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ জানিয়েছেন, ভারতের প্রতিবেশী প্রথম নীতিতে একটি অনন্য স্থানে রয়েছে বাংলাদেশ।

গতকাল বুধবার (১৫ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় বঙ্গভবনে বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদের সঙ্গে সাক্ষাৎকালে তিনি এ কথা বলেছেন।

এ সময় দুই দেশের বাণিজ্য সম্পর্ক আরও এগিয়ে নিতে যৌথ উদ্যোগ নেওয়ার ওপর জোর দিয়েছেন এই দুই নেতা।

ভারতের রাষ্ট্রপতি সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় বঙ্গভবনে পৌঁছালে রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ এবং তাঁর স্ত্রী রাশিদা হামিদ তাকে স্বাগত জানান। পরে বঙ্গভবনের ক্রেডেনশিয়াল হলে বৈঠকে বসেন তাঁরা।

ভারতকে বাংলাদেশের খুব কাছের ও বিশ্বস্ত বন্ধু রাষ্ট্র হিসেবে বর্ণনা করেন রাষ্ট্রপতি হামিদ।

১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধে ভারতের সার্বিক সহযোগিতার কথা কৃতজ্ঞতার সঙ্গে স্মরণ করে তিনি এবং দেশটির সরকার ও জনগণের প্রতি ধন্যবাদ জানান।

এক টুইট বার্তায় ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র অরিন্দম বাগচি বলেন, বঙ্গভবনে দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে রাষ্ট্রপতি কোবিন্দকে স্বাগত জানিয়েছেন বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ।

সার্বভৌমত্ব, সমতা, আস্থা এবং বোঝাপড়ার ওপর ভিত্তি করে দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ককে আরও এগিয়ে নিয়ে যাওয়া এবং কৌশলগত অংশীদারিত্ব সম্প্রসারণ করা নিয়ে আলোচনা করেন তারা।

ভারতের রাষ্ট্রপতির কার্যালয় থেকে প্রকাশিত এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, বৈঠকে রাষ্ট্রপতি কোবিন্দ পুনর্ব্যক্ত করে বলেন, ভারতের প্রতিবেশী প্রথম নীতিতে বাংলাদেশের একটি বিশেষ স্থান রয়েছে।

বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের উন্নয়ন অংশীদারিত্ব সবচেয়ে ব্যাপক এবং বিস্তৃত। একই সঙ্গে আমাদের সম্পর্ক সবচেয়ে জটিল দিকগুলো মোকাবেলা করার জন্য যথেষ্ট পরিপক্ক।

প্রভাতনিউজ/এনজে