ভুয়া ভ্যাকসিন নেওয়ার ৪ দিন পর অসুস্থ মিমি

পশ্চিমবঙ্গের কসবা এলাকায় বিশেষভাবে চাহিদাসম্পন্ন শিশু ও সমকামীদের বিনামূল্যে করোনা টিকা দেওয়া হচ্ছিলো। সেখানে উপস্থিত থেকে সবাইকে উৎসাহিত করতে নিজেও ভ্যাকসিন নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেন টলিউড অভিনেত্রী ও তৃণমূলের সাংসদ মিমি চক্রবর্তী। পরে জানা যায়, সম্ভবত হাম বা বিসিজির টিকা কিংবা পাউডার গোলা পানি দেওয়া হয়েছিল মিমিকে। এমনই দাবি কলকাতার ফরেন্সিক বিশেষজ্ঞদের। শুধু মিমি নয়, কসবার জাল টিকা ক্যাম্প থেকে ভ্যাকসিন নিয়েছিলেন বহু মানুষ। সেক্ষেত্রে মিমি চক্রবর্তী অসুস্থ হয়ে পড়ায় উদ্বেগ বাড়ছে।

এর ৪দিন পর অসুস্থ হয়ে পড়েছেন মিমি। ডিহাইড্রেশনের সমস্যায় ভুগছেন এই অভিনেতী। নেমে গিয়েছে রক্তচাপও। পাশাপাশি পেটের যন্ত্রণাতেও ভুগছেন তিনি।

অভিনেত্রীর ঘনিষ্ঠ মহল সূত্রে খবর, শরীরে ভুয়া টিকা গেছে এই খবর জানার পর থেকেই স্বাভাবিকভাবে উদ্বিগ্ন ছিলেন সাংসদ। শনিবার সকালে আচমকাই তিনি অসুস্থ বোধ করেন। তবে কি কারণে অসুস্থ হয়ে পড়েছেন তিনি, তা এখনও স্পষ্ট নয়। তবে শরীরে ভুয়া টিকা গিয়েছে এই খবর সামনে আসার পরেই একাধিক টেস্ট করিয়েছিলেন এই সাংসদ। আপাতত চিকিৎসকদের পরামর্শ মতো বাড়িতেই রয়েছেন তিনি।

টিকা নেওয়ার পর একটি ভিডিও বার্তায় মিমি জানিয়েছিলেন, ‘আমি সুস্থ আছি। যারা সেদিন ভ্যাকসিন নিয়েছি আমরা সবাই প্রতারিত। আমি যখন সুস্থ আছি আপনাদেরও কিছু হবে না।

এই ঘটনার মূলে হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে দেবাঞ্জন দেব নামে এক ব্যক্তিকে। যিনি নিজেকে আইএএস অফিসার এবং কলকাতা পৌরসভার যুগ্ম-কমিশনার হিসেবে ভুয়া পরিচয় দিয়েছিলেন। তাকে খোঁজার চেষ্টা চালাচ্ছে কলকাতা পুলিশ।