রাশিয়া-ইউক্রেন নেতাদের এক টেবিলে আনার চেষ্টায় এরদোগান

রাশিয়া এবং ইউক্রেন সীমান্তের সাম্প্রতিক উত্তেজনা নিরসনের লক্ষ্যে দুই দেশের নেতাদের এক টেবিলে বসানোর চেষ্টা অভ্যাহত রেখেছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান। তুরস্কের প্রেসিডেন্টের মুখ্যপাত্র ইব্রাহিম কালিন এই তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, রাশিয়া এবং ইউক্রেনের নেতাদের একত্রিত করার জন্য আমাদের প্রেসিডেন্ট যে সুনির্দিষ্ট প্রস্তাব দিয়েছেন তা বর্তমান সংকট কাটিয়ে উঠার জন্য সবচেয়ে তাৎপর্যপূর্ণ।

তিনি বলেন, সম্প্রতি কিয়েভ সফরের সময় এরদোগান এই বিষয়টি নিয়ে ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কির সাথে কথা বলেছেন। এছাড়া রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সাথেও তিনি এ বিষয়ে ফোনে কথা বলেছেন। আশাকরা হচ্ছে শিগগিরই নতুন করে তাদের সাথে যোগাযোগ হবে।

কালিন বলেন, আমরা আশাকরছি পুতিন খুব শিগগিরই তুরস্ক সফর করবেন। এরই মধ্যে রাশিয়ার সাথে আমাদের যোগাযোগ শুরু হয়েছে।

তিনি বলেন, রাশিয়ার সঙ্কট নিরসনের জন্য সংলাপ এবং কূটনীতিকে অগ্রাধিকার দেওয়া উচিত। এছাড়া উত্তেজনা নিরসনের জন্য উভয় পক্ষের পদক্ষেপ নেয়া দরকার। কারণ ইউক্রেন অঞ্চলের উত্তেজনা সবার উপরেই নেতিবাচক প্রভাব ফেলবে।

কালিন জোর দিয়ে বলেছেন যে ‘আমাদের প্রত্যাশা, প্রচেষ্টা এবং আশা হল যে কোনো সংঘাত, সামরিক হস্তক্ষেপ বা দখল হবে না।’ তথ্যসূত্র : ইয়েনি সাফাক।

প্রভাতনিউজ/এনজে