লকডাউন দিয়ে মাদ্রাসা বন্ধ করা যাবে না : বাবুনগরী

জুনায়েদ বাবুনগরী

লকডাউন দিয়ে মাদ্রাসা বন্ধ করা যাবে না বলে হুঁশিয়ার করে দিয়েছেন হেফাজতে ইসলামের আমির মাওলানা জুনায়েদ বাবুনগরী

তিনি বলেছেন, মসজিদে নামাজ পড়া ও এতেকাফ বন্ধ করা যাবে না। পবিত্র রমজান মাসে কোরআন ও হাদিসের তাফসির, মাহফিলে দোয়ার কারণে করোনা আসবে না।

আজ রোববার চট্টগ্রামের হাটহাজারীর আল-জামিয়াতুল আহলিয়া দারুল উলুম মুঈনুল ইসলাম মাদ্রাসায় হেফাজতের কেন্দ্রীয় কমিটির জরুরি বৈঠকের পর আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে জুনায়েদ বাবুনগরী এসব কথা বলেন।

হেফাজতে ইসলামের আমির বলেন, করোনার নামে লকডাউন দিয়ে মাদ্রাসা বন্ধ করা যাবে না। মসজিদে নামাজ বন্ধ করা যাবে না। এতেকাফ বন্ধ করা যাবে না। তারাবির নামাজ চলবে, জুমার নামাজ চলবে, এতেকাফ চলবে।

জুনায়েদ বাবুনগরী বলেন, পবিত্র রমজান মাসে কোরআন ও হাদিসের তাফসির, মাহফিলে দোয়ার কারণে করোনা আসবে না। কোনো মাদ্রাসার ছাত্র, আলেম-ওলামা করোনায় আক্রান্ত হয়নি। সিরাত মাহফিল ও ইফতারের সময় দোয়ার কারণে করোনা আসবে না। আমরা দোয়া করি, বিশ্বের সব মুসলমান যেন করোনা থেকে রক্ষা পায়। এজন্য রমজানে রোজার রাখার সুযোগ দিতে হবে, তারাবির নামাজ পড়ার সুযোগ দিতে হবে।

আরও পড়ুন…গাজীপুরে শিশু বক্তা রফিকুল ইসলামের বিরুদ্বে আরও একটি মামলা

এদিকে হেফাজতে ইসলামের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হকের নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয়ের রয়েল রিসোর্ট ও এর পরে অডিও ফাঁসের বিভিন্ন ঘটনাকে ‘ব্যক্তিগত বিষয়’ বলে মন্তব্য করেন সংগঠনটির আমির মাওলানা জুনায়েদ বাবুনগরী।

বৈঠকে মামুনুল হকের বিষয়ে আলোচনা হয়েছে কিনা বা তাঁর বিষয়ে কোনো সিদ্ধান্ত হয়েছে কিনা জানতে চাইলে জুনায়েদ বাবুনগরী বলেন, এগুলো ব্যক্তিগত বিষয়। কারো কোনো ব্যক্তিগত বিষয়ে আলোচনা হয়নি। কাউকে অব্যাহতি দেওয়ার কোনো কথা হয়নি। হেফাজতে ইসলাম—ঈমান আকিদা রক্ষার জন্য আন্দোলন করছে, কাউকে ক্ষমতা থেকে নামানো বা ওঠানোর জন্য আন্দোলন করছে না। 

বৈঠক থেকে হেফাজতে ইসলামের নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে মামলা প্রত্যাহার ও গ্রেপ্তার নেতাকর্মীদের মুক্তি দাবি করা হয়েছে। এ ছাড়া আগামী ২৯ মে হাটহাজারী মাদ্রাসায় ওলামা-মাশায়েখ সম্মেলন হবে বলে সিদ্ধান্ত হয়েছে।

হেফাজতে ইসলামের আমির বলেন, বিভিন্ন মাদ্রাসায় র‍্যাব-পুলিশ দিয়ে হয়রানি করা হচ্ছে। তৌহিদি জনতার নামে মিথ্যা মামলা দায়ের করা হচ্ছে। অবিলম্বে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করতে হবে। যাদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে তাদের অবিলম্বে মুক্তি দিতে হবে।

সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন হেফাজতে ইসলামের প্রধান উপদেষ্টা মাওলানা মুহিবুল্লাহ বাবুনগরী, যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা নাসির উদ্দিন মুনিরী ও মাওলানা জুনায়েদ আল হাবিব এবং সাংগঠনিক সম্পাদক আজিজুল হক ইসলামাবাদী।