সাহসী হিরো আলম দিয়ে সিনেমা হল চালু

0
55

মহামারি করোনাভাইরাসের কারণে প্রায় সাত মাস ধরে বন্ধ রয়েছে সব সিনেমা হল। তবে সম্প্রতি দেশের পরিস্থিতি অনেকটাই স্বাভাবিক হয়ে এসেছে। স্কুল-কলেজ ছাড়া সবই খুলে দেয়া হয়েছে। তাই সিনেমা হল খোলা হোক এমন দাবি করছেন অনেকেই। অবশেষে স্বাস্থ্যবিধি মেনে সরকারি অনুমতি সাপেক্ষে আজ শুক্রবার থেকে চালু হচ্ছে সিনেমা হল। তবে সেখানে আসন সংখ্যা কমিয়ে অর্ধেক করার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

শোনা যাচ্ছে, হল চালুর প্রথম দিনেই মুক্তি পাচ্ছে হিরো আলম অভিনীত ও প্রযোজিত সিনেমা সাহসী হিরো আলম। তবে প্রায় সাত মাস হল বন্ধ থাকার পর হিরো আলমের সিনেমা দিয়ে হল চালুকে মেনে নিতে পারছেন না অনেকে। এটাকে বাংলা চলচ্চিত্র শিল্পের জন্য আরেক সংকট বলে মনে করছেন তারা। তাদের মতে, সিনেমার এই সংকটকালে হলে দর্শক ফেরাতে সাহস নিয়ে বড় বাজেটের সিনেমাগুলোকেই এগিয়ে আসতে হবে।

গত বুধবার তথ্য মন্ত্রণালয়ের উপসচিব সাইফুল ইসলাম স্বাক্ষরিত একটি চিঠি হল মালিক ও জেলা প্রশাসকদের কাছে পাঠানো হয়। সেই চিঠিতে সিনেমা হল খোলার অনুমতি ও এ সংক্রান্ত নির্দেশনা দেয়া হয়। চিঠিতে বলা হয়, কোভিড-১৯ -এর বর্তমান পরিস্থিতিতে যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি পালন ও সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিতকরণ এবং সিনেমা হলের আসন সংখ্যা কমপক্ষে অর্ধেক খালি রাখা সাপেক্ষে আগামী ১৬ অক্টোবর থেকে সারা দেশের সিনেমা হলসমূহের চলচ্চিত্র প্রদর্শনের অনুমতি দেয়া হল।

এদিকে সাধারণ হলগুলোর পাশাপাশি সিনেপ্লেক্সও চালুর অনুমতি পেয়েছে কি না জানতে চাইলে স্টার সিনেপ্লেক্সের বিপণন ও জনসংযোগ কর্মকর্তা মেসবাহ উদ্দিন বলেন, খবরটি আমরাও শুনেছি। তবে এখনো কোনো চিঠি পাইনি। আশা করছি দ্রুতই পাবো। চিঠি হাতে এলে আমরা বিস্তারিত জানাতে পারব।

তবে সিনেমা হল খুললেও চলচ্চিত্রের সংকট কাটছে না সহসাই। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, এ মুহূর্তে সিনেমা মুক্তিতে আগ্রহ নেই বড় সব প্রযোজক-পরিচালকদের। অনেকেই মনে করছেন, করোনার ভয় এখনো কাটেনি মানুষের মন থেকে। এমন সময় হল খুললেও দর্শক আসবেন না। তাই বড় বাজেটের ছবিগুলোর পরিচালক-প্রযোজকরা নিজেদের সরিয়ে রাখতে চাইছেন ঝুঁকিপূর্ণ এই সময়টাতে।