হিজাব বিতর্কে এবার পোগবা

ভারতের কর্নাটকের হিজাব বিতর্কের ঢেউ দেশটির সীমা অতিক্রম করে আগেই বিদেশে ছড়িয়ে পড়েছিল। এবার পল পোগবা এই বিতর্কে ঢুকে পড়লেন। বিশ্ব ফুটবলের অন্যতম সেরা ফুটবলার তিনি। ওই ফরাসি তারকা পোগবা এবার তার ইনস্টাগ্রামে একটি ভিডিও শেয়ার করেছেন। যেখানে দেখা যাচ্ছে, হিন্দুত্ববাদীরা হিজাব পরিহিত মুসলিম ছাত্রীদের হেনস্থা করছে কলেজ চত্বরে। ম্যাঞ্চেস্টার ইউনাইটেডের প্লে মেকার পোগবার ইনস্টাগ্রামে ৫১ মিলিয়ন ফলোয়ার রয়েছেন। পোগবা এই ভিডিও শেয়ার করায় তার অনুরাগীরা যে এই ভিডিও নিয়ে আলোচনা শুরু করবেন, তা বলাইবাহুল্য।

পোগবার আগে হিজাব বিতর্ক নিয়ে মুখ খুলেছেন নোবেলজয়ী মালালা ইউসুফজাই। তিনি বলেছেন, ‘হিজাব পরে মেয়েদের স্কুলে যেতে নিষেধ করার বিষয়টি ভয়াবহ।’ সেইসাথে মুসলিম নারীদের যাতে কোণঠাসা করা না হয়, সেই কারণেই ভারতীয় নেতাদের কাছে মালালার আবেদন, ‘মুসলিম নারীদের কোণঠাসা করার চেষ্টা এ বার বন্ধ করুন আপনারা।’

মঙ্গলবার কর্নাটকে হিজাব পরা এক মুসলিম ছাত্রীর উগ্র হিন্দুদের হাতে হেনস্তা হওয়ার ভিডিওটি টুইটারে পোস্ট করার পর বিশ্বজুড়ে ব্যাপক ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে।

ভিডিওতে দেখা যায়, মানদায় মুশকান খান তার কলেজে আসামাত্র গেরুয়া স্কার্ফ পরা একদল ছেলে তাকে ঘিরে ধরেছে। তবে তিনি দমে না গিয়ে নিজের অবস্থান প্রকাশ করেন। তিনি জানান, ওই উগ্র ছেলেগুলোর বেশির ভাগই বহিরাগত।

কর্নাটকের ওই কলেজ কর্তৃপক্ষ ইসলামি স্কার্ফ নিষিদ্ধ করাকে মুসলিম শিক্ষার্থীরা মেনে নিতে পারছে না। তারা এটাকে ভারতের সেক্যুলার সংবিধানে তাদের ধর্মবিশ্বাস নিশ্চিত থাকার আশ্বাসের ওপর আক্রমণ বলে মনে করছে। হিন্দু উগ্রবাদী গ্রুপগুলো শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলোতে মুসলিম ছাত্রীদের প্রবেশ বন্ধ করার চেষ্টা করলে সম্প্রদায়িক উত্তেজনার সৃষ্টি হয়।

তাকে বাধাদানকারী ছেলেরা জয় শ্রী রাম স্লোগান দিলে মুশকান খান আল্লাহু আকবার ধ্বনি দেন। তার এই ধ্বনি সারা বিশ্বে ছড়িয়ে পড়েছে। তথ্যসূত্র : সংবাদ প্রতিদিন ও আলজাজিরা।

প্রভাতনিউজ/এনজে