৩ বছরেও হয়নি রাস্তা সংস্কার, সামান্য বৃষ্টিতেই হাঁটুপানি

টানা কয়েকদিনের বৃষ্টিতে সাটুরিয়া ডাকবাংলোর সামনের রাস্তা পানি জমে হাঁটুপানি। সামান্য বৃষ্টি হলে জমে পানি সৃষ্টি হয় জলাবদ্ধতার এমন পরিস্থিতিতে তৈরি হয় অবর্ণনীয় জনদুর্ভোগ।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, গতকাল সোমবার রাতের বৃষ্টিতে হাঁটুপানি ও কাঁদা জমে আছে রাস্তায়। হাঁটুপানিতে ভিজে জনসাধারণ জনদুর্ভোগ নিয়েই চলাচল করছে।

সাটুরিয়া আল মদিনা ডিজিটাল ডায়াগনস্টিক সেন্টারের চেয়ারম্যান মো. রফিকুল ইসলাম বলেন, প্রতিদিন এই রাস্তায় হাজার হাজার মানুষ যাতায়াত করেন। আমি দীর্ঘদিন ধরে রাস্তাটি এই অবস্থাই দেখে আসছি। সামান্য বৃষ্টিতে এখানে হাঁটুপানি ও কাঁদা জমে থাকে।

এ ব্যাপারে সাটুরিয়া উপজেলা প্রকৌশলী এএফএম তৈয়াবুর রহমান বলেন, রাস্তাটি আমাদের এলজিইডির না। রাস্তাটির পুনঃ সংস্করণের কাজ করছে সওজ। সামান্য বৃষ্টি হলে হাঁটুপানি জমে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়ে জনদুর্ভোগ হচ্ছে। তাই দ্রুত সময়ের মধ্যে সাটুরিয়া ডাকবাংলোর সামনের রাস্তাটি পুনঃ সংস্করণ প্রয়োজন বলে তিনি মনে করেন।

অপর দিকে মানিকগঞ্জের সড়ক ও জনপদের নির্বাহী প্রকৌশলী গাউসুল আজম মারুফ বলেন, সাটুরিয়া-বালিয়াটি রাস্তার সংস্কারের কাজ ২০১৮ থেকে শুরু হয়েছে। ২০২১ সালের জুনে শেষ হওয়ার কথা থাকলেও জমি অধিগ্রহণের জটিলতার কারণে তা শেষ করা যাচ্ছে না। প্রকল্পের মেয়াদ বাড়বে। সাটুরিয়া ডাকবাংলোর সামনের রাস্তায় পানি জমে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়ে যাতে জনদুর্ভোগ না বাড়ে সেই ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে তিনি জানান।